আমিনুল ইসলাম-এর গুচ্ছকবিতা

আমিনুল ইসলাম | ২৪ এপ্রিল ২০১৩ ১০:৩১ অপরাহ্ন

কী নাম দেবো জানি না

ব্যর্থতার ঘামে জবুথবু
রৌদ্রে শুকাই মন
হে সূর্য, তাপ কমিও না
আমাকে পুড়তে দাও।

স্রোতের আঁকা চিত্রকল্প

আমিও পেয়েছি যেমনটা পেয়েছিল পূর্ববর্তীগণ
তুমি এসে নিয়ে যাও, আর কত ধরে রাখি!
আর কত দরখাস্ত! দাঁড়িয়ে যে হিমাগার
দ্যাখো তারও হাতে সময়ের সিলেবাস
কাটামাঠ ভরবে আবার ইঁদুরের উল্লাসে উত্তরশরতে!

ভাঙলে ভাঙুক গোড়া–তলায় লাগাক দাঁত
নূহের ইঁদুর-ডাঙায় শুকাবে কেন?
তারচেয়ে নেসই ভালো–নদী এসে নিয়ে যাক্
বন্দরের চিত্রকল্প রচলে রচুক হাওয়া
অন্তত সেও ভালো– হোক না তা ঢেউয়ের জিহ্বায়।

যেখানে হিসাব মেলে না

তোমার পা’দুটি দুলদুলের হ’লে বাহুদুটি অর্জুনের
এবং মেরুদণ্ডটি সুন্দরবনের প্রাপ্তবয়স্ক শালগাছ
যদি এভাবে বলি তাতে করে কী ছায়ার হরফে
রাত এঁকে দেয়া হবে…… রোদের খাতায়?

এত এত হাঁটো–বৃক্ষ থেকে বন, জল থেকে নদী
অথচ লজিকের কী লোডশেডিং
গন্তব্যে পৌঁছাতে পারো না!
তোমার পায়ে চুমু খেয়ে হাসে এলোমেলো হাওয়া।

কিন্তু কে বলবে–কেন এই অদ্ভুত অসাফল্য?
তারচে বরং ঐ চক্ষুবিশেষজ্ঞকে ডাকো!

আর গন্তব্য মানেই হাওয়ায় দোলা দূর-দৃষ্টির উঠান।

নিভৃতচারীর পৃথিবী

পুরোনো গাছের গুড়ির কোটরে বাসা বেঁধে
নিরীহ মুনিয়া ভাবে
সে যোগ দেবে না ফিঙেদের মিছিলে
কা-কা শ্লোগানে দেবে না কান
অথচ নষ্ট হয় নিদ
কীটনাশকের ঘ্রাণ–সাপের শ্বাস
বিষের আঙুলে
সুড়সুড়ি দেয়
নাকডাকা নাকে
মগডালে বসে নাতিনাতনিদের গল্প শোনায় ব্যাঙ্গমা
এক ছিল নিরামিষাশী পাদ্রী
আর এক ছিল ষাঁড়…

পৃথিবীতে একার পৃথিবী বলে কোনো পৃথিবী নেই।

Flag Counter

সর্বাধিক পঠিত

প্রতিক্রিয়া (11) »

    • প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন maniryousuf — এপ্রিল ২৫, ২০১৩ @ ১০:৪১ পূর্বাহ্ন

      আমিনুল ইসলাসের কবিতা গুলো পড়লাম। ভালো লাগলো। কবিতা গুলো অনেক ঝর ঝরে। অন্যরকম আস্বাদ পেলাম। কবিতার জয় হোক।

    • প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন Md Bayazid Hossain — এপ্রিল ২৫, ২০১৩ @ ১১:৪১ পূর্বাহ্ন

      kobita gulo redoy chuya. Bedona vora kobita gulo eto valo hote pare amar jana chilo na.

    • প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন Md. Abir Khan — এপ্রিল ২৫, ২০১৩ @ ১১:৪৩ পূর্বাহ্ন

      monta etoy vora gacha ja onek bar porachi.

    • প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন Azad Noman — এপ্রিল ২৫, ২০১৩ @ ১১:৪৪ পূর্বাহ্ন

      Churming and Illuminated Poem of Poet Aminul Islam. The Theme is Uncommon.

      Azad Noman

    • প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন Kabedul Islam — এপ্রিল ২৫, ২০১৩ @ ১২:২৭ অপরাহ্ন

      Aminul Islamer kabitaya besh khanikta natunatwer swad pelam. Bishesh kare tanr kabitar bhasa, chitra o chitrakalpa, premikake kichhuta bhinnabhabe upasthapaner chesta, Hindu o Muslim puraner eashat byabahar ebang sarbopari gadyachhander prayasha tan-tan bunan–jarparnai bhalo legechhe. Kabike dhanyabad, ebang tanr kachh theke ejatiyo aro bhalo kabita chai.
      Kabedul Islam
      Dhaka.

    • প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন Maruf Ahmed — এপ্রিল ২৫, ২০১৩ @ ১:১১ অপরাহ্ন

      কটি পরিপূর্ণ আধুনিক কবিতা গুচ্ছের সম্ভার । কবিতামনষ্ক পাঠকের চেতনাকে উপমার নানামাত্রিক ব্যবহারে অলংকৃত করেছেন। বদলেয়ার এর তীব্র বোধের সাথে মিল পাওয়া যায় কবি আমিনুল ইসলামের এই অসামান্য সৃষ্টি গুলির মাঝে। আপাত দৃষ্টিতে সহজ সরল উপমার মাঝেই জীবনানন্দ সার্থকভাবে এনেছেন জীবনের গভীর বোধ, সমাজ সচেতনতা এবং নগর জীবনের দ্বান্দ্বিকতার নবতর ব্যাখ্যা, আঙ্গিক এবং ভাষাতাত্ত্বিক দিক থেকে নতুন চেতনার দাবি রাখে। “নিভৃতচারীর পৃথিবী ‘এক একটি বিচ্ছিন্ন দ্বীপবাসী একাকী মানব মনের চিরন্তন ভয় আর আকুতির বহিঃ প্রকাশ, বালজাক যেমন বলেন- “নাইটিঙ্গেল পাখিটি বসে ছিল ওক গাছের শীর্ষে,তবু তার ডুবে যাবার ভয়”।
      “কী নাম দেবো জানি না’ লিরিকটি চিরন্তন ব্যর্থ মানুষের জীবনের দিকে ফিরে তাকানোর এক অসামান্য বোধ।

    • প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন zaman — এপ্রিল ২৫, ২০১৩ @ ১:২৪ অপরাহ্ন

      আমার তাঁর লেখাগুলো খুব ভাল লেগেছে। আমি তাঁর এ ধরণের লেখা আরও কামনা করছি । আশা করি তিনি এধরণের আরও অনেক কবিতা আমাদের উপহার দেবেন।

    • প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন Aryan Ahmed — এপ্রিল ২৫, ২০১৩ @ ১:৪৬ অপরাহ্ন

      Poet Aminul Islam has carefully depicted here the psychological conflict of human being as a preserver of life & of destroyer of soul. This sense has brought this poem out from the ground of ordinary to an outstanding form.These poem are one of the valuable addition to Bengali literature of modern phenomena.

    • প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন Manik Mohammad Razzak — মে ২, ২০১৩ @ ১০:২৭ পূর্বাহ্ন

      কবিতাগুলো পড়ে বেশ ভাল লাগলো। বিশেষত ‘নিভৃতচারীর পৃথিবী’ হৃদয় ছুঁয়েছে, কবিকে অনেক অনেক শুভেচ্ছা।

      মানিক রাজ্জাক

আর এস এস

আপনার প্রতিক্রিয়া জানান

 
প্রতিক্রিয়া লেখার সময় লক্ষ্য রাখুন:
১. ছদ্মনামে করা প্রতিক্রিয়া এবং ব্যক্তিগত পরিচয়ের সূত্রে করা প্রতিক্রিয়া গৃহীত হবে না। বিষয়সংশ্লিষ্ট প্রতিক্রিয়া জানান।
২. বাংলা লেখায় ইংরেজিতে প্রতিক্রিয়া বা রোমান হরফে লেখা বাংলা প্রতিক্রিয়া গৃহীত হবে না।
৩. পেস্ট করা বিজয়-এ লিখিত বাংলা প্রতিক্রিয়া ব্রাউজারের কারণে রোমান হরফে দেখা যেতে পারে। তাতে সমস্যা নেই।
 


Disclaimer & Privacy Policy  |  About us  |  Contact us

© bdnews24.com