রেখার অশেষ আলো

আর্টস-এর ওয়েব গ্যালারীতে শিল্পী সফিউদ্দীন আহমেদের ছবি

| ১১ জুলাই ২০০৮ ২:১২ পূর্বাহ্ন

————————————
ছবির সংখ্যা: ৮৬
————————————
sa.jpg

ধানমণ্ডির ‘বেঙ্গল গ্যালারি অব্ ফাইন আর্টস্‌’-এ ২৩ জুন ২০০৮-এ শুরু হয়েছে শিল্পী সফিউদ্দীন আহমেদের একক প্রদর্শনী: “রেখার অশেষ আলো” (The Limitless Luminosity of Line)। প্রদর্শনী চলবে জুলাইয়ের ১৩ তারিখ পর্যন্ত। বাংলাদেশে শিল্পী সফিউদ্দীন আহমেদের এটিই প্রথম একক। এর আগে ১৯৫৯ সালে লন্ডনের নিউ আর্ট ভিশন গ্যালারিতে একটি একক প্রদর্শনী করেছিলেন তিনি, সেটি উচ্চতর শিক্ষা গ্রহণের কালে।

এবারের প্রদর্শনীতে ছবির সংখ্যা ৮৬। বেঙ্গল শিল্পালয়-এর সৌজন্যে আর্টস-এর ওয়েব গ্যালারিতে সমুদয় চিত্র উপস্থাপন করা হলো। প্রদর্শনীর পরেও আর্টস-এর আর্কাইভে ছবিগুলি দেখা যাবে। প্রদর্শিত চিত্রকর্মের ছবি তুলেছেন সিউতি সবুর।

প্রদর্শনী বিষয়ে বেঙ্গল গ্যালারি অব্ ফাইন আর্টস্‌-এর ভাষ্য:

বাংলাদেশের চিত্রকলার ভুবনে সফিউদ্দীন আহমেদ উজ্জ্বল জ্যোতিষ্কের মতো দেদীপ্যমান। দীর্ঘদিনের একব্রতী শিল্পসাধনার মধ্যে দিয়ে এই শিল্পীপুরুষ বাংলাদেশের শিল্পের ভুবনকে নানাভাবে সমৃদ্ধ ও দীপিত করেছেন। তিনিই এদেশের ছাপচিত্রের জগতে অনন্যসাধারণ এক শিল্পগুরু। সমকালীন চিত্রের ভুবনে প্রধান শিল্পীও বটে। তাঁর সৃজনী উদ্যম, শিল্পিত মানস ও শিক্ষাব্রতী হৃদয়ের স্পর্শে আলোড়িত এবং সিক্ত হয়ে এদেশের অগণিত শিল্পী তাঁদের শিল্পীসত্তাকে আলোকাভিসারী করে তুলেছেন।

সফিউদ্দীন আহমেদ শিল্পীজীবনের প্রাথমিক পর্যায় থেকে অদ্যাবধি বিভিন্ন মাধ্যমে কাজ করেছেন এবং সকল মাধ্যমের কাজে তাঁর আশ্চর্য দক্ষতা রয়েছে। উৎকর্ষে ও সংখ্যার বিবেচনায় তাঁর সৃষ্টিও কম তাৎপর্যবাহী নয়। অথচ নিজে নিভৃতচারী ও প্রচ্ছন্নে থাকতে ভালোবাসেন বলে অজস্র কাজের এক সমৃদ্ধ ভাণ্ডার থাকা সত্ত্বেও দেশে কোনো প্রদর্শনী করেননি। লন্ডনে উচ্চতর শিক্ষাগ্রহণের (১৯৫৯) অন্তিম পর্যায়ে তিনি লন্ডনের নিউ আর্ট ভিশন গ্যালারিতে একটি একক প্রদর্শনী করেছিলেন।

আজ তাঁর ৮৬তম জন্মবার্ষিকী। বেঙ্গল গ্যালারি অব্ ফাইন আর্টস্ তাঁর জন্মদিনকে সামনে রেখে ‘রেখার অশেষ আলো’ শীর্ষক রেখাচিত্রের বিশেষ এক প্রদর্শনীর আয়োজন করেছে। বাংলাদেশের চিত্রকলা আন্দোলনের প্রধান শিল্পীর এই প্রদর্শনী নানা দিক থেকে তাৎপর্যময় হয়ে উঠবে বলে আমরা আশা করছি। তাঁর নিরন্তর শিল্পচর্চা ও জীবনসাধনার বিচ্ছুরণের পরিচয়সহ ‘রেখার অশেষ আলো’ আমাদের চিত্রশিল্পের মনোভূমিতে একটি বদ্ধ দরোজার দুয়ার হাট করে খুলে দেবে।

দুর্ঘটনাজনিত আঘাতে শয্যাশায়ী হওয়া সত্ত্বেও এই উদ্যোগে সানন্দে সম্মতি প্রদান করে সফিউদ্দীন আহমেদ আমাদের কৃতজ্ঞতাপাশে আবদ্ধ করেছেন।

রেখা যে-কোনো চিত্রকরের শিল্প-সাধনায় মৌল বিষয়। সফিউদ্দীন ড্রইংকে আয়ত্ত করার জন্য বিরতিহীন চর্চা করেছেন। চল্লি­শের দশকে তিনি যখন কলকাতা আর্ট ইনস্টিটিউটের ছাত্র তখনই ড্রইংয়ে দক্ষতা অর্জন করেন। এই প্রদর্শনীতে তাঁর শিল্পীজীবনের বিভিন্ন পর্যায়ের বাছাই করা ড্রইংয়ের কাজের কিছু নিদর্শন রইলো। নানা ধরনের অভিব্যক্তি, মানুষের সংগ্রামী চেতনা ও নিসর্গকে অবলম্বন করে তাঁর এই রেখাগুচ্ছ। তাঁর এই সকল কাজে বাঁক, উপবাঁক ও নানা ধরনের নিরীক্ষার ছাপ আছে। আমরা এই প্রদর্শনী আয়োজন করতে পেরে আনন্দিত বোধ করছি। আমরা জানি তাঁর সৃজনভুবনের এই যৎসামান্য কাজ দেখতে পেয়ে চিত্রানুরাগী, শিল্পী ও শিক্ষার্থীরা লাভবান হবেন।

এই প্রদর্শনীকে সাফল্যমণ্ডিত করার জন্য তাঁর পরিবারের সকল সদস্য, বিশেষ করে তাঁর স্ত্রী আঞ্জুমান আরা আহমেদ, শিল্পীপুত্র আহমেদ নাজির ড্রইং বাছাই করা থেকে প্রদর্শনীর খুঁটিনাটি সকল বিষয়ে যে উদার সহযোগিতা করেছেন সেজন্য
বেঙ্গল গ্যালারি অব্ ফাইন আর্টস্ তাঁদের কাছে ঋণী।

বেঙ্গল গ্যালারি অব্ ফাইন আর্টস্

————————————————-
প্রদর্শনীর ছবি
ছবি বড় সাইজে দেখতে ছবিতে ক্লিক করুন।

সর্বাধিক পঠিত

প্রতিক্রিয়া (0) »

এখনও কোনো প্রতিক্রিয়া আসেনি

আর এস এস

আপনার প্রতিক্রিয়া জানান

 
প্রতিক্রিয়া লেখার সময় লক্ষ্য রাখুন:
১. ছদ্মনামে করা প্রতিক্রিয়া এবং ব্যক্তিগত পরিচয়ের সূত্রে করা প্রতিক্রিয়া গৃহীত হবে না। বিষয়সংশ্লিষ্ট প্রতিক্রিয়া জানান।
২. বাংলা লেখায় ইংরেজিতে প্রতিক্রিয়া বা রোমান হরফে লেখা বাংলা প্রতিক্রিয়া গৃহীত হবে না।
৩. পেস্ট করা বিজয়-এ লিখিত বাংলা প্রতিক্রিয়া ব্রাউজারের কারণে রোমান হরফে দেখা যেতে পারে। তাতে সমস্যা নেই।
 


Disclaimer & Privacy Policy  |  About us  |  Contact us

© bdnews24.com