গল্প

প্রকাশ বিশ্বাসের অনুগল্প: বনভূমি

prokash_biswas | 31 Dec , 2017  

bow-and-arrowবনভূমির ঠিক মধ্যিখানে অনেকগুলো আপেলগাছ হরেক রকমের গাছের সাথে মিলেমিশে দাঁড়িয়ে। সেখানে চোখবাঁধা অবস্থায় এই মাত্র একদল তীরন্দাজদের ধরে নিয়ে আসা হলো। তাদের বলা হলো তোমাদের সামনে ঐ যে বড় আপেলবৃক্ষ যা তোমরা দেখতে পাচ্ছোনা তাতে অসংখ্য লাল টুকটুকে পাকা আপেল ফল ঝুলে আছে। তোমরা প্রত্যেকেই তীর ছুঁড়ে সেগুলোকে ভূপাতিত করবে। আর তখন এক এক করে এই সব অন্ধ তীরন্দাজরা তাদের তীর ছুঁড়তে লাগলো। আর আশ্চর্য প্রত্যেক তীরের মাথাই সেগুলোকে বিদ্ধ করে নীচে ফেলে দিল এবং চারদিকের বাতাস মিষ্টি আপেলের গন্ধে দ্রবীভূত হয়ে গেল।

কিন্তু এদের মধ্যে একজন তীরন্দাজ ভাবলো কেন আমি চোখবাঁধা অবস্থায় তীর ছুঁড়বো আর কেন কিভাবেই বা এগুলো সঠিক নিশানায় পৌঁছবে। তাই সে সিদ্ধান্ত নিল চোখের বাঁধন খুলে ফেলবে। তাহলে তার কাছে সমস্ত ব্যাপরটাই চেখের আলোয় স্পষ্টভাবে ধরা পড়বে। তাই সে তার চোখের বাঁধন খুলে ফেলল। কিন্তু অবাককান্ড সে তার সামনে কোন প্রতিযোগী তীরন্দাজদের আর দেখতে পেলনা। এমনকি আপেলগাছের ছায়াও না।

Flag Counter


7 Responses

  1. palash says:

    অসাধারন গল্প। চোখ বাধাঁ অবস্থায় আমরা সবাই জ্ঞানহীন কিন্তু চোখ খোলা অবস্থায় সত্যদর্শী।

  2. করবী মালাকার says:

    “আমি চোখ থাকিতে অন্ধ ছিলাম
    পেলাম দৃষ্টি আজ চোখ হারিয়ে”।

    ভাল লাগ গল্পটি।

  3. দেবাশীষ দেব says:

    আমাদের যা কিছু অর্জন সব আসবে চোখ বন্ধ রাখলে! অন্ধ হলে সব পাব! তাই অন্ধকারে ঢিল ছোড়াই ভালো!

  4. গীতা দাস says:

    গল্পের নাম বনভূমি না হয়ে মনোভূমি হওয়া উচিত ছিল।

  5. sabbir ahmed sajib says:

    God is illusion and real.

  6. ভাল লাগল……

    গল্পের নাম ‘অন্ধ তীরন্দাজ’ হতে পারত।

  7. মুন্সী সাদিক সালেহ says:

    ভালো লাগলো। স্বপ্ন ও বাস্তবতার মধ্যদিয়ে অণুগল্পটিকে গল্পকার সার্থক করে তুলেছেন অন্ধ তীরন্দাজের উপমায়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.