সাইফুল্লাহ মাহমুদ দুলালের গুচ্ছ কবিতা

সাইফুল্লাহ মাহমুদ দুলাল | ২৭ এপ্রিল ২০১৬ ১০:৩১ অপরাহ্ন


ভাইফোঁটা

তোমার বিভিন্ন অঞ্চলে, তোমার পাতায় পৃষ্ঠায় চাপাতির চাকচাক রক্ত! তুমি রক্তমাখা গ্রন্থ। তুমি রক্ত দিয়ে পরেছো সিঁদুর, পরেছো রক্তের টিপ! তোমার নম্র-নরম হাতে রক্তে আঁকা মেহেদি, নখে রক্ত রঙের লাল নেলপালিশ। পায়ের পাতায় লতানো রক্তাক্ত আলতা!

সেই সম্পর্কের রক্ত স্পর্শ করে রক্ত দিয়েই দীপনের কপালে দিলে বিদায়ী ভাইফোঁটা!

ভ্রমণ

নায়াগ্রা যাবার পথে বিদেশি গ্রাম। টিম হর্টনস। খামারবাড়ি। কোথাও শর্ষে ক্ষেত দেখি না।
শীতল অরণ্যে আপেল গাছ, পাতার আড়ালে শুধু নারী আপেলের নিমন্ত্রণপত্র
ঘন কুয়াশার বদলে গাঢ় স্নো’র ছড়াছড়ি, শীতমাত্রা শৈলপ্রপাতে মাত্রাহীন মাইনাস।
সাপের শরীরের মতো সড়কের দু’পাশে চারপাশে নীলজল, জলপরীদের জলকেলি
মানব গন্ধে জুম-যুবতীরা ছায়া ফেলে মিলিয়ে গেলো স্নো-কুয়াশায়। এখনো কাঁপছে জল!

এখানে ক্যানাডিয়ান সন্তু লারমা নেই। আছে শুধু আদি আপেল, আদিবাসী গেরাম,
জুম-চাষ নেই। তিনদিকে আঙুরবাগান। আঙুরফল টক। রক্তলাল ওয়াইনে উষ্ণতা
হোম মেইড চাই-দোচোয়ানি, তালের রস, খামারবাড়ির এক গেলাস মাতাল শর্ষেফুল…
জলের পাশে রাস্তা শুয়ে থাকে। দাঁড়াতে বা বসতে পারে না। শুধু ভ্রমণ ধারণ করে।

পাখিখেকো সাপ

রাখলের ভূমিকায় আমিও ফিরবো কোনো এক সন্ধ্যায়।
রাতের কেন্দ্রবিন্দু নাভি থেকে সাপের পায়ে নেমে যাবো জলসিঁড়ি ঘাটে
গৃহপালিত জোছনা হয়ে ঘুমাবো গৌর নদীর জলচকিতে।

সাপের ভাষা অনুবাদ করলে শুধু বিষ নয় অসুধও পাবে।
অলস মহিষের পিঠে পাখিদের সংগম দেখে বিশ বছরের রাখাল বের করেছিল সাপের বিষ।
হাসনাহেনা ভালোবাসে সাপ; জোছোনায় পাখিখেকো সাপ গাছে গাছে শিকার খোঁজে!

Flag Counter

প্রতিক্রিয়া (7) »

    • প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন Muhammad Samad — এপ্রিল ২৮, ২০১৬ @ ১১:৩২ পূর্বাহ্ন

      কবিতাগুলো সুন্দর। আমার ভালো লেগেছে।
      মুহাম্মদ সামাদ

    • প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন saifullah mahmud dulal — এপ্রিল ২৮, ২০১৬ @ ১২:২০ অপরাহ্ন

      মুহাম্মদ সামাদ, মামা;
      অনেক অনেক ধন্যবাদ।
      তোর চাইনিজ কবিতার অনুবাদ্গুলো অসাধারণ ছিলো।

    • প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন manik — এপ্রিল ২৮, ২০১৬ @ ১২:৩২ অপরাহ্ন

      বাংলা কবিতার বর্তমান অবস্থা দেখলে সম্ভবত নজরুল , রবি আর দাশ বাবুরা সত্যি কাবু হয়ে যেতেন!!! শব্দ আর ভাব ধার করা ছাড়া আমরা এখন লিখতেই পারি না।

    • প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন মাহমুদ হাফিজ — এপ্রিল ২৮, ২০১৬ @ ১২:৪০ অপরাহ্ন

      কবি সবসময় সমকালীনতাকে অঙ্গীকার করেন। কবিতাগুলো ভাল লাগলো। এতে কবির প্রেক্ষণবিন্দুতে তার আশপাশের জীবন যেমন উঠে এসেছে…তেমনি দূরপ্রবাস থেকে মাতৃভূমির প্রতি একটা নিবিড় টান স্পষ্ট হয়ে রয়েছে একটি কবিতায়…..

    • প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন ফারহান ইশরাক — এপ্রিল ২৮, ২০১৬ @ ১১:২২ অপরাহ্ন

      সাইফুল্লাহ মাহমুদ দুলালের কবিতা তাঁর সময়ের অন্য যেকোনো কবির চেয়ে আলাদা। এই যে তাঁর কবিতাকে পৃথকতার ন্যায্যতা দিতে চাইছি তা কেবল তাঁর কবিতার ভিন্ন স্বভাবের কথা প্রকাশ করে না, বরং বলতে চাই এটাও যে, তিনি একটা আলাদা বাকবৈশিষ্ট্য নির্মাণ করেই কবিতার পথে এগিয়েছেন। এবারের কবিতা তিনটা পড়ে আবার সেই পৃথকতার ব্যঞ্জনা টের পেলাম। কবিকে অভিনন্দন।

    • প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন saifullah mahmud dulal — এপ্রিল ২৯, ২০১৬ @ ১২:৫৩ অপরাহ্ন

      Mr. Manik, আপনার মন্তব্যের জন্য ধন্যবাদ। তবে বাংলা সাহিত্য রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের নৌকাডুবিতেই ডুবে যায়নি অথবা কাজী নজরুল ইসলামের মরুভাস্কর-এই শেষ হয়ে যায়নি কিংবা জীবনানন্দ দাশের সাতটি তারার তিমির-এই নিমজ্জিত হয়ে অন্ধকারে বিলীন হয়ে যায়নি। তারপর বাংলা সাহিত্য, বাংলা কবিতা অনেক অনেক দূর এগিয়ে গেছে। সেই সাথে পাঠকদেরও এগুতে হবে। পিছিয়ে থাকলে থাকলে কি চলবে?
      ——-
      ভাই মাহমুদ হাফিজ,
      খুব ভালো ধরেছো- ‘দূরপ্রবাস থেকে মাতৃভূমির প্রতি একটা নিবিড় টান স্পষ্ট হয়ে রয়েছে’। তাই তো মধুসূদন দত্তের ‘হে বঙ্গ, ভান্ডারে তব বিবিধ রতন’ অথবা ‘সতত, হে নদ তুমি পড় মোর মনে সতত তোমার কথা ভাবি এ বিরলে’ যেন আমার নিজের কথা!!
      ——-
      প্রিয় ফারহান,
      আমিও তোমার কবিতার অনুরাগী। শুধু আমি কেন; রাহমান ভাইও তোমার কবিতা পড়ে আমাকে বলেছিলেন, তোমাকে দেখা করতে!
      যাহোক, তোমাকে অনেক অনেক ধন্যবাদ।

    • প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন ফারহান ইশরাক — মে ৪, ২০১৬ @ ১০:৩৮ অপরাহ্ন

      অনেক কৃতজ্ঞতা, দুলাল ভাই। আমার প্রথম বই আপনার হাত দিয়ে যে বেরিয়েছিল সেটা মনে করলে এখনও একটা আত্মতৃপ্তি বোধ করি। ঐ সময়ে আপনি ছাড়া এতা সুন্দর করে কে বের করতো আমার বই!

আর এস এস

আপনার প্রতিক্রিয়া জানান

 
প্রতিক্রিয়া লেখার সময় লক্ষ্য রাখুন:
১. ছদ্মনামে করা প্রতিক্রিয়া এবং ব্যক্তিগত পরিচয়ের সূত্রে করা প্রতিক্রিয়া গৃহীত হবে না। বিষয়সংশ্লিষ্ট প্রতিক্রিয়া জানান।
২. বাংলা লেখায় ইংরেজিতে প্রতিক্রিয়া বা রোমান হরফে লেখা বাংলা প্রতিক্রিয়া গৃহীত হবে না।
৩. পেস্ট করা বিজয়-এ লিখিত বাংলা প্রতিক্রিয়া ব্রাউজারের কারণে রোমান হরফে দেখা যেতে পারে। তাতে সমস্যা নেই।
 


Disclaimer & Privacy Policy  |  About us  |  Contact us

© bdnews24.com