ম্যান বুকার ও ওবামা দম্পতির পাণ্ডুলিপি নিয়ে প্রকাশকদের কাড়াকাড়ি

মুহিত হাসান | ১৭ মার্চ ২০১৭ ১:২২ অপরাহ্ন

ম্যান বুকার ইন্টারন্যাশনাল প্রাইজের জন্য মনোনীত যাঁরা
চীনের কমিউনিজম নিয়ে ব্যঙ্গাত্মক বয়ান, আফ্রিকার পটভূমিতে রবিন হুড ঘরানার একটি গল্পের পুনর্কথন অথবা বিভক্ত জেরুজালেমে বেড়ে ওঠার গল্প– এ বছরের ম্যান বুকার ইন্টারন্যাশনাল প্রাইজের জন্য মনোনীত উপন্যাসগুলোর বিষয়বৈচিত্র্য দেখবার মতো বটে। সম্প্রতি বুকার কতৃর্পক্ষের প্রকাশ করা একটি ‘লংলিস্টে’ পাওয়া গেছে মোট বারো দেশের তেরোটি উপন্যাসের নাম। মোট আটটি উপন্যাসই অবশ্য মনোনীত হয়েছে ইউরোপ থেকে। এর বাইরে ইজরায়েলের দুটি এবং চীন, আর্জেন্টিনা ও আলবেনিয়ার একটি করে উপন্যাস স্থান পেয়েছে উপন্যাসের জন্য প্রদত্ত এই আন্তর্জাতিক পুরস্কারের মনোনয়ন তালিকায়।
&NCS_modified=20161221133400&MaxW=640&MaxH=427&AR-161229871আলবেনিয়ার সুবিখ্যাত কথাকার ইসমাইল কাদারে, যিনি কিনা আগে তাঁর তাবৎ সাহিত্যকর্মের জন্য ২০০৫ সালে ম্যান বুকার ইন্টারন্যাশনাল প্রাইজ পেয়েছিলেন(ওই বছরই আদতে এই মূল্যবান পুরস্কার প্রদানের শুরু)– এ বছর ফের মনোনীত হয়েছেন তাঁর নতুন উপন্যাস The Traitor’s Niche-এর জন্য। যার মূল চরিত্র অটোমান সাম্রজ্যের রাজদরবারের একজন দূত তথা বাহক, যার কাজ হলো সুলতানের ধৃত শত্রুদের শিরচ্ছেদের পর তাঁদের কাটা মন্ডু বহন করে নিয়ে চলা।

এবারের ম্যান বুকারের মনোনয়ন-তালিকায় সম্প্রতি আশি বছর বয়স পার করে আসা কাদারের গা ঘেঁষে এই পুরস্কারের জন্য পূর্বে মনোনীত হওয়া তিনজন লেখকও আছেন। ইজরায়েলি লেখক-সাংবাদিক আমোস ওজ-এর আগে ২০০৭ সালে এই পুরস্কারের জন্য মনোনীত হয়েছিলেন, এবার তাঁর নতুন উপন্যাস Judas-এর নাম উঠেছে মূল পুরস্কারের তালিকায়। কঙ্গোতে জন্মগ্রহণ করা ফরাসি লেখক অ্যালেন ম্যাবোনকো কথাসাহিত্যে নিজের সামগ্রিক অবদানের জন্য সম্ভাব্য তালিকায় মনোনয়ন পেয়েছিলেন ২০১৫ সালে, আর এই বছর তিনি ফর্দে ঠাঁই পেয়েছেন Black Moses উপন্যাসের রচয়িতা হিসেবে। যার পটভূমিতে রয়েছে কঙ্গোর দ্বিতীয় বৃহত্তম শহর পোঁতে নোয়া, আর কাহিনির বিস্তার ঘটেছে রবিন হুড কিংবদন্তির মতো একটি স্থানীয় লুঠেরা-ভবঘুরে অথচ সৎ দস্যুদলের বিচিত্র সব অভিযান ঘিরে।
এবারের তালিকায় আরো আছেন চীনা কথাকার লি ইয়ানকি, যিনি The Four Books উপন্যাসের জন্যে বুকারের শর্টলিস্টে উঠে এসেছিলেন গত বছর, অর্থাৎ ২০১৬ সালে। এবার মনোনীত হয়েছে তাঁর নতুন ব্যঙ্গাত্মক উপন্যাস The Explosion Chronicles । ‘বিস্ফোরণ’ তথা ‘Explosion’ নামের এক গ্রামকে ঘিরে আবর্তিত হয়েছে উপন্যাসটির বিমূর্ত ফ্যান্টাসিময় আখ্যান, যে গ্রামটি কিনা ক্রমে ক্রমে হয়ে উঠছে একটি ধাবমান মেট্রোপলিটন নগরী ।
ফরাসি আরবি-ফারসি বিশারদ মাথাইস এনার্ড তালিকায় জায়গা পেয়েছেন তাঁর উপন্যাস Compass-এর জন্য। আঠারো মাস আগেই তাঁর এই উপন্যাসটি ফ্রান্সের সর্বোচ্চ সম্মানিত ও পুরোনো সাহিত্য পুরস্কার ‘Prix Goncourt’-এ ভূষিত হয়েছিল। ইজরায়েলের আরেক লেখক ডেভিড গ্রসম্যান মনোনয়ন পেয়েছেন A Horse Walks Into a Bar উপন্যাসের জন্য। একজন কমেডিয়ানকে নিয়ে এই উপন্যাসটি লেখা হলেও আলোচকরা বলেছেন, এটি মোটেই নিছক হাস্যরসাত্মক বা সরলপাঠ্য কিছু নয় বরং এক অভাবনীয় হুল্লোড়ময় আখ্যানই যেন বা। জার্মান লেখক ক্লেমেন ম্যায়রের উপন্যাস Bricks and Mortar-এর নামও তালিকায় উঠেছে, এটির কাহিনি নির্মিত হয়েছে যৌনকর্মীদের প্রসঙ্গ ঘিরে।
ডাচ বংশোদ্ভূত বেলজিয়ান কবি-লেখক স্টেফান হের্টম্যান মনোনীত হয়েছেন তাঁর দাদার রোজনামচাকে ভিত্তি করে লেখা উপন্যাস War and Turpentine-এর জন্য। নরওয়ের একটি দ্বীপের পটভূমিতে রচিত পারিবারিক আখ্যানধর্মী উপন্যাস The Unseen-এর জন্য রয় জ্যাবকসন ও আইসল্যান্ডের একটি ছোট্ট শহরে ঘটে যাওয়া দুটি প্রেমময় ঘটনা নিয়ে লেখা Fish Have No Feet-এর জন্য জন ক্যালমান স্টেফান্সসনও এবারের বুকার পুরস্কারের মনোনয়ন পেয়েছেন ।
উল্লেখ্য, লংলিস্টে মনোনয়ন পাওয়া তেরোটি উপন্যাসের মধ্যে সাতটিরই ইংরেজি ভাষান্তর করেছেন সাতজন নারী। তবে তেরোটি উপন্যাসের লেখকদের মধ্যে নারী রয়েছেন মাত্র তিনজন। পোলিশ কবি উইলেল্টা গ্রেগ, যিনি থাকেন ইংল্যান্ডের এসেক্সে, মনোনয়ন পেয়েছেন তাঁর প্রথম উপন্যাস দিয়েই। Swallowing Mercury নামের ওই উপন্যাসে উঠে এসেছে কমিনিউস্ট আমলের পোল্যান্ডের অভিঘাতবহুল সময়টুকু। আর্জেন্টিনার লেখিকা সামান্থা সুয়েবলিনের উপন্যাস Fever Dream–ও মনোনীত হয়েছে। এটি ইংরেজিতে অনূদিত হওয়া তাঁর প্রথম বই, যদিও এর আগে আরও চারটি উপন্যাস তিনি লিখেছিলেন। ডেনিশ লেখিকা ডরথি নর্স মনোনয়ন পেয়েছেন তাঁর ট্র্যাজিকমেডি ঘরানার উপন্যাস Mirror, Shoulder, Signal-এর জন্য। সম্প্রতি জরিপ করে দেখা গেছে, ইংরেজিতে অনূদিত হওয়া পুস্তকসমূহের মাত্র ছাব্বিশ শতাংশ নারীদের রচিত। বুকারের লংলিস্টেও পুরুষদের তুলনায় নারীর সংখ্যা গত বছরের তুলনায় খানিক কম বৈকি। গত বছর চারজন নারীর লেখা বই মনোনীত হয়েছিল এবং মনোনীত বইগুলোর মধ্যে আটটির অনুবাদক ছিলেন নারীরা। গত বছরের বুকার পুরস্কারের বিচারক তাহমিমা আনাম নারী-পুরুষের এই আনুপাতিক ফারাককে আমলে নিয়ে তখন বলেছিলেন, যাঁরা অনূদিত হচ্ছেন তাঁদের মধ্যেও লৈঙ্গিক-বৈষম্যের প্রতিফলন দেখা যাচ্ছে। কাকতালীয়ভাবে, চূড়ান্ত বিচারে গতবার ম্যান বুকারপ্রাপ্ত উপন্যাসটির লেখক ও অনুবাদক দুজনই ছিলেন নারী। The Vegetarian উপন্যাসের জন্য হ্যান কং বিজয়ী হয়েছিলেন। উপন্যাসটির অনুবাদক ছিলেন ডোবরাহ স্মিথ।
এবারের ম্যান বুকার ইন্টারন্যাশনাল প্রাইজের জন্য মোট ১২৬টি বই মনোনয়ন পেয়েছিল। তার ভেতর থেকেই এই তেরোটির তালিকা তৈরি করেছেন কয়েকজন বিশিষ্ট নির্বাচক। নির্বাচকমন্ডলীর প্রধান ছিলেন নিক বার্লি যিনি আবার এডিনবুর্গ আন্তর্জাতিক বইমেলার পরিচালকও। আর সদস্য হিসেবে ছিলেন অনুবাদক ড্যানিয়েল হান, ঔপন্যাসিক এলিফ সাফাক, লেখক চিকুয়া ইউনিগ ও কবি হেলেন মর্ট। নিক বার্লি বিচারকার্য সম্পর্কে জানান, এ বছর তাঁরা অত্যন্ত শক্তিশালী সব অনূদিত কথাসাহিত্যের সম্মুখীন হয়েছেন। এবং বুকারের লংলিস্টে থাকা উপন্যাসগুলো এমন, যা পড়ে ফেলতে একজন পাঠক রীতিমতো বাধ্য হন আর সেসব উপন্যাস একইসাথে দুর্দান্তরকমের বুদ্ধিদীপ্তও বৈকি।
উক্ত তেরোটি বই থেকে বাছাই করা ছয়টি বইয়ের ‘শর্টলিস্ট’ আগামী ২০শে এপ্রিল ঘোষিত হবার কথা রয়েছে। ১৪ই জুন লন্ডনে একটি অনুষ্ঠানে ঘোষিত হবে এ বছরের ম্যান বুকার ইন্টারন্যাশনাল প্রাইজের চূড়ান্ত বিজয়ীর নাম। বিশ্বজুড়ে আলোচিত ও পঞ্চাশ হাজার পাউন্ড মূল্যমানের(উল্লেখ্য, এই অর্থ বইয়ের লেখক ও অনুবাদক–দুজনকেই আধাআধি ভাগ করে দেওয়া হয়ে থাকে) পুরস্কারটি শেষমেশ কার হাতে যায়, সেটাই দেখবার জন্য প্রতীক্ষা এখন।

ওবামা দম্পতির পাণ্ডুলিপি নিয়ে প্রকাশকদের কাড়াকাড়ি
2098যথাক্রমে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ও ফার্স্ট লেডির গদি ছাড়তে হলেও খ্যাতি বিন্দুমাত্র কমেনি বারাক ও মিশেল ওবামা দম্পতির, তা পুনরায় বোঝা গেল তাঁদের পান্ডুলিপি বই আকারে প্রকাশ করা নিয়ে বিশ্বখ্যাত কয়েক প্রকাশকের কাড়াকাড়ি দেখে। শেষমেশ ভাগ্যে শিঁকে ছিঁড়েছে পেঙ্গুইন র‌্যান্ডম হাউজ কতৃর্পক্ষের। তারাই চূড়ান্তভাবে বইটি প্রকাশ করার দায়ভার হাতে পেয়েছে। তাও আবার রেকর্ড পরিমাণ অর্থের বিনিময়ে। তবে রেকর্ড পরিমাণ অর্থের অংকটি আদতে ঠিক কত, তা নিয়ে কেউ মুখ খুলছেন না। তবে ফিনান্সিয়াল টাইমস-এর একটি রিপোর্ট থেকে জানা গেছে, সংখ্যাটি কিছুতেই ষাট মিলিয়ন ডলারের কম নয়। এমনকি তার বেশিও হতে পারে! হার্পার কলিন্স, পল ম্যাকমিলান ও সাইমন অ্যান্ড সুস্টারের মতো অন্যসব নামজাদা প্রকাশকও ছুটেছিলো পান্ডুলিপি পাওয়ার দৌঁড়ে, কিন্তু উর্ধ্বগামী অংকের অর্থ দিয়েই পেঙ্গুইন অন্তিম মুহূর্তে বাজিমাত করেছে–এমন কানকথাও শোনা যাচ্ছে। সাবেক দুই প্রেসিডেন্ট বিল ক্লিন্টন ও জর্জ বুশ তাঁদের আত্মকথার জন্য যথাক্রমে ১৫ ও ১০ মিলিয়ন ডলার আয় করেছিলেন। ওবামা দম্পতি তাঁদের এই নতুন বই প্রকাশের আগেই উপরোক্ত দুজনকে বহুদূর ছাড়িয়ে গেলেন বটে। পেঙ্গুইনের সিইও মার্কুস ডোলে এক বিবৃতিতে জানিয়েছেন, ওবামা দম্পতির সাথে বই প্রকাশের সম্পর্ক চলমান রাখতে পেরে তাঁরা সত্যিই খুব রোমাঞ্চিত। কানকথা হতে যতদূর জানা গেছে, বারাক ও মিশেল ওবামার লেখা দুটি স্মৃতিকথা বই হিসেবে প্রকাশ পেতে চলেছে। আর দুটি বইয়েরই কেন্দ্রভূমিতে থাকতে পারে ওবামা দম্পতির হোয়াইট হাউজে কাটানো আট বছরের দিনগুলো। যদিও পেঙ্গুইন-সংশ্লিষ্ট কোনো সূত্র সংবাদমাধ্যমকে আনুষ্ঠানিকভাবে এই তথ্য সম্পর্কে নিশ্চিত করতে পারেনি।
অবশ্য পেঙ্গুইন র‌্যান্ডম হাউজের সাথে ওবামা দম্পতির লেখাজোখার যোগাযোগ নতুন কিছু নয়। এর আগেও বারাক ওবামার একাধিক বেস্টসেলার বই যেমন Dreams from My FatherThe Audacity of Hope প্রকাশ করেছিল পেঙ্গুইন। হোয়াইট হাউজের রান্নাঘরের বিবিধ মেনুর রেসিপি নিয়ে মিশেল ওবামার লেখা বই American Grown-এরও প্রকাশক তারা।

সূত্র : গার্ডিয়ান, নিউ ইয়র্ক টাইমস
Flag Counter

প্রতিক্রিয়া (0) »

এখনও কোনো প্রতিক্রিয়া আসেনি

আর এস এস

আপনার প্রতিক্রিয়া জানান

 
প্রতিক্রিয়া লেখার সময় লক্ষ্য রাখুন:
১. ছদ্মনামে করা প্রতিক্রিয়া এবং ব্যক্তিগত পরিচয়ের সূত্রে করা প্রতিক্রিয়া গৃহীত হবে না। বিষয়সংশ্লিষ্ট প্রতিক্রিয়া জানান।
২. বাংলা লেখায় ইংরেজিতে প্রতিক্রিয়া বা রোমান হরফে লেখা বাংলা প্রতিক্রিয়া গৃহীত হবে না।
৩. পেস্ট করা বিজয়-এ লিখিত বাংলা প্রতিক্রিয়া ব্রাউজারের কারণে রোমান হরফে দেখা যেতে পারে। তাতে সমস্যা নেই।
 


Disclaimer & Privacy Policy  |  About us  |  Contact us

© bdnews24.com